ঈশ্বরগঞ্জে নিখোঁজের দুইদিন পর নদী থেকে স্কুল ছাত্রের মরদেহ উদ্ধার

প্রকাশিত: ৫:৩১ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ১১, ২০২০
34 Views
ইশতিয়াক আহমেদ ইসহাক, ঈশ্বরগঞ্জ(ময়মনসিংহ)প্রতিনিধিঃ
ময়মনসিংহের ঈশ্বরগঞ্জে পারভেজ মোশাররফ (১৫) নামে এক স্কুলছাত্রকে হত্যার পর ব্রহ্মপুত্র নদে মরদেহ ফেলে দেয়া হয়। গত শুক্রবার নিখোঁজ হওয়ার দুইদিন পর রোববার সকালে নদী থেকে মরদেহ উদ্ধার করা হয়।
নিহত পারভেজ মরিচারচর উচ্চ বিদ্যালয়ের অষ্টম শ্রেণির ছাত্র ছিল। সে উচাখিলা ইউনিয়নের মরিচারচর উত্তরপাড়া এলাকার মালয়েশিয়া প্রবাসী মঞ্জুরুল হকের ছেলে।
পরিবার সূত্রে জানা যায়, গত শুক্রবার রাত আনুমানিক ৮টার দিকে পারভেজকে মুঠোফোনে জরুরি কথা আছে বলে কে বা কারা ডেকে নিয়ে যায়া। এরপর সে তার বাইসাইকেল নিয়ে অপরপ্রান্তের থাকা ব্যাক্তির সাথে দেখা করতে বের হয়ে পরে। যখন গভীর রাতেও পারভেজ বাড়িতে না ফিরে তখন সবাই অনেক খোঁজাখুঁজি করেও তাকে আর পাওয়া যায়নি। রোববার সকাল ৭টার বাড়ি থেকে প্রায় এক কিলোমিটার দূরে ব্রহ্মপুত্র নদে মরদেহ পাওয়া গেছে বলে তার পরিবারের লোকজন জানতে পারে। পারভেজের পরিবারের লোকজন গিয়ে পরে মরদেহ শনাক্ত করে। খবর পেয়ে ঈশ্বরগঞ্জ থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে মরদহটি উদ্ধার করে।
নিহত পারভিন এর শরীরের বেশ কিছু স্থানে আঘাতের চিহ্ন পাওয়া যায় এবং তার গলায় ধারালো অস্ত্রের আঘাতের  চিহ্ন পাওয়া যায়।
নিহতের মা রুজিনা বেগম বলেন, তাদের সঙ্গে কারো শত্রুতা নেই। তার ছেলেকে মোবাইল ফোনে ডেকে নিয়ে যাওয়া হয়। নিজের সাইকেল ও দুটি মোবাইল নিয়ে যায় সাথে। তার ধারণা মোবাইল ফোনের জন্যই তার ছেলেকে হত্যা করা হয়েছে।
ঈশ্বরগঞ্জ থানার ওসি মো. মোখলেছুর রহমান বলেন, নিহতের মরদেহ নদ উদ্ধার করা হয়েছে। হত্যার কারণ উদঘাটনে চেষ্টা চলছে।