তাড়াশে স্ত্রী-সন্তানকে রেখে চলে গেলেন প্রতারক স্বামী

প্রকাশিত: ২:৪৭ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ৪, ২০২০

মহসীন আলী,তাড়াশ:

সিরাজগঞ্জের তাড়াশে স্ত্রী সন্তান রেখে চলে গেলেন প্রতারক স্বামী। ঘটনাটি ঘটেছে তাড়াশ বাজারে। জানা যায়, দিনাজপুর জেলা সদরের কালিতলা বাজারে পিতা মৃত তানসার আলী ও মাতা শাহিদা বেগমের মেয়ে কাজলী খাতুনের সাথে জাহিদুল ইসলামের বিয়ে হয়। স্ত্রী কাজলী বলেন, জাহিদুল ইসলাম মাছের ব্যবসা করতো আমাদের বাজারে। পরিচয়ের এক পর্যায়ে আমার সাথে ৪বছর আগে বিয়ে হয়। আমাদের ২বছর ৬ মাস বয়সের ১টি পুত্র সন্তান আছে। জাহিদুল ইসলাম বিয়ের সময় ঠিকানা দিয়েছিল সিরাজগঞ্জের তাড়াশ উপজেলার সদরের আব্দুল কাদের আলীর ছেলে। ৪ বছর পর আমাকে ও আমাদের সন্তানকে সাথে নিয়ে তার নিজ বাড়ী তাড়াশে আসার জন্য মঙ্গলবার সকালে দিনাজপুর থেকে রওয়ানা হয়ে তাড়াশ বাজারে এসে চা বিক্রেতা বাবুর দোকানের পাশে বসিয়ে রেখে বাজার করার কথা বলে চলে গেলে আর ফিরে আসে নাই। প্রায় ২ ঘন্টা পর জাহিদুল ইসলামের ফোনে ০১৭০৭৭৩০৩৮২ নং ফোন দিলে বন্ধ পাওয়া যায়। ফলে মেয়েটি কান্না শুরু করলে বাজারের লোকজন বিষয়টি জেনে প্রতারকের খোজ ও মোবাইলে যোগাযোগের চেষ্ঠা করতে থাকে। কিন্তু ওই নামে কোন মাছ ব্যবসায়ী খুজে পাওয়া যায় না । পরে স্থানীয় ব্যবসায়ীরা টাকা সংগ্রহ করে মেয়েটিকে দিনাজপুরে তার বাবার বাড়িতে পাঠিয়ে দেন। সংবাদটি লেখা পর্যন্ত প্রতারকের সন্ধান পাওয়া যায় নি।
তাড়াশ বাজারের ব্যবসায়ী মেহেরুল ইসলাম বাদল বলেন , এই ধরনের প্রতারকদের আইনের আওতায় এনে দৃষ্ঠান্ত মুলক শাস্তির ব্যবস্থা করা দরকার।