বারহাট্টায় লকডাউন বাস্তবায়নে উপজেলা প্রশাসন-সেনাবাহিনী ও পুলিশের কঠোর হস্তক্ষেপ

প্রকাশিত: ৬:১৮ অপরাহ্ণ, জুলাই ৪, ২০২১
0Shares

নেত্রকোনা প্রতিনিধি :

নেত্রকোনার বারহাট্টায় কঠোর লকডাউনের চতুর্থ দিনে লকডাউন বাস্তবায়নে মাঠে কাজ করেছেন উপজেলা প্রশাসন-সেনাবাহিনী ও পুলিশ।

রবিবার (৪ জুলাই)বারহাট্টা উপজেলায় চতুর্থ দিনেও বিভিন্ন এলাকায় লকডাউন কার্যকর করার লক্ষ্যে উপজেলা নির্বাহী অফিসার গোলাম মোর্শেদ,উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মোহাম্মদ মাইনুল হক কাশেম ও সহকারী কমিশনার (ভূমি) সাদিয়া উম্মুল বানিন সহ পুলিশ ও সেনাবাহিনীর সদস্যরা মাঠে ছিলেন। এসময় তাদেরকে সহযোগীতা করেছেন বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর একটি টহল টিম ও বারহাট্টা থানার অফিসার ইনচার্জ মিজানুর রহমানের নেতৃত্বে থানা পুলিশের একটি চৌকস দল।

এসময় সরকারি বিধি-নিষেধ ও স্বাস্থ্যবিধি অমান্য করে বাইরে চলাফেরা এবং বিনা প্রয়োজনে মোটরসাইকেল নিয়ে বাজারে আসায় মোবাইল কোর্টের মাধ্যমে অর্থদণ্ড প্রদান করা হয়।

মোবাইল কোর্টের মাধ্যমে উপজেলা নির্বাহী অফিসার গোলাম মোর্শেদ সতর্কমূলকভাবে ১টি মামলায় ১০ হাজার টাকা ও সহকারী কমিশনার (ভূমি) সাদিয়া উম্মুল বানিন ১২টি মামলায় ১৯ হাজার ১শত ৫০ টাকা জরিমানা আদায় করেন।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার গোলাম মোর্শেদ বলেন, সরকারের নির্দেশনা অনুযায়ী উপজেলা প্রশাসন বারহাট্টায় সর্বাত্মক লকডাউন বাস্তবায়নে নানামুখী পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে।
মহামারী এই করোনা ভাইরাসের সংক্রমণের হাত থেকে বাঁচাতে উপজেলাবাসীকে ঘরে থাকতে বলছি। কেউ বিনা প্রয়োজনে ঘর থেকে বের হবেন না। তিনি লকডাউন বাস্তবায়নে সকলের সহযোগিতা কামনা করেন।

বারহাট্টা উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মোহাম্মদ মাইনুল হক কাশেম বলেন,সরকারের দেওয়া কঠোর লকডাউন পালনে সকল শ্রেণি পেশার মানুষকে এগিয়ে আসতে হবে,তিনি সকলে সহযোগিতা আহবান করেন,অযথা কেউ ঘরের বাহিরে যাবেন না,যারা অযথা বাহিরে ঘুরাঘুরি করবে,তাদের কাছ থেকে বিভিন্ন ভাবে জরিমানা আদায় করা হবে ,নিজে সুস্থ থাকুন পরিবারকে সুস্থ রাখুন।