কালকিনিতে আদালতের নির্দেশ উপেক্ষা করে ভবন নির্মাণ

প্রকাশিত: ৫:১৮ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ২৬, ২০২২
242 Views

বি.এম.হা‌নিফ. কালকিনি (মাদারীপুর) প্রতিনিধিঃ

মাদারীপুরের কালকিনি উপজেলার উত্তর রমজানপুর গ্রামে আদালতের নির্দেশ উপেক্ষা করে ভবনের নির্মাণ কাজ চালালে ২পক্ষের মধ্যে চরম উত্তেজনার সৃষ্টি হয়। আর এতে করে উভয় পক্ষের লোকজনের মধ্যে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষের আশঙ্কা সৃষ্টি হওয়ায় গ্রামবাসীর মধ্যে চরম আতঙ্ক দেখা দিয়েছে।

আজ(শনিবার) সকালে এঘটনা ঘটে এবং উভয় পক্ষের লোকজনদের আদালতের নির্দেশ মতে শান্তি-শৃঙ্খলা বজায় রাখার জন্য আহ্বান জানিয়েছে কালকিনি থানা।

গ্রামবাসী জানায়, উপজেলার উত্তর রমজানপুর গ্রামের আহম্মেদ আলী মিয়া চৌকিদারের ছেলে ফারুক চৌকিদার ও আঃ রব বেপারীর ছেলে হাবিবুর রহমান বেপারী’র সাথে দীর্ঘদিন ধরে একই গ্রামের মোতাহার আলী চৌকিদারের ছেলে আঃ কাদের চৌকিদারের দ্বন্দ্ব চলে আসছে। এরই প্রেক্ষিতে কৌশলে ফারুক চৌকিদার ও হাবিবুর রহমান বেপারী উত্তর রমজানপুর ফাজিল মাদ্রাসা পরিচালনা কমিটির সদস্য নির্বাচিত হয়। আর মাদ্রাসার উন্নয়নে একটি ভবন নির্মানের কাজ শুরু করলে ফারুক চৌকিদার ও হাবিবুর রহমান বেপারী পুর্বশত্রুতা উদ্ধারে ১৪৬নং উত্তর চর রমজানপুর মৌজায় বি.আর.এস ১৭৩০নং খতিয়ানে ২০৯নং দাগে পারিবারিক শত্রু আঃ কাদের চৌকিদার ও তার পরিবারের পৈত্রিক জমি জোরপূর্বক দখল করে মাদ্রাসার ভবন নির্মানের চেষ্টা চালায়। ফারুক চৌকিদার ও হাবিবুর রহমান বেপারী গ্রামের প্রভাবশালী ব্যক্তি হওয়ায় আঃ কাদের চৌকিদার নিরুপায় হয়ে ন্যায় বিচারের আশায় গত ২৬অক্টোবর আদালতে ১৪৪/১৪৫ধারায় একটি মামলা দায়ের করে। মামলার প্রেক্ষিতে আদালত তদন্ত ও উভয় পক্ষদের শান্তি-শৃঙ্খলা বজায় রাখার নির্দেশ দেয়। কিন্তু প্রভাবশালী ফারুক চৌকিদার ও হাবিবুর রহমান বেপারী আদালতের নির্দেশ উপেক্ষা করে প্রতিপক্ষের জমিতে জোরপূর্বক ভবন নির্মানের কাজ শুরু করে। এতে করে উভয় পক্ষের মধ্যে চরম উত্তেজনার সৃষ্টি হয়।

এব্যাপারে গ্রামবাসী নাসির উদ্দিন চৌকিদার, সোনাই মিয়া, সুলতান চৌকিদার সহ ১০/১২জন গ্রামবাসী জানায়, মাদ্রাসায় আঃ কাদের চৌকিদারের পরিবারের পক্ষ থেকে যে জমি দান করা হয়েছিল তা মাদ্রাসা রেকর্ড করে নিয়েছে এবং দখলে আছে। কিন্তু শুধু মাত্র পারিবারিক শত্রুতা উদ্ধারে আঃ কাদের ও তার পরিবারের পৈত্রিক ও রেকর্ডিয় জমি জোর পূর্বক দখল করে মাদ্রাসার নতুন ভবন নির্মানের চেষ্টা চালাচ্ছে ফারুক চৌকিদার ও হাবিবুর রহমান বেপারী। উদ্দেশ্য মাদ্রাসার ভবন নির্মান করা হলে আর কোনদিন যাতে কাদের চৌকিদার সেই জমি ভোগ করতে না পারে। অপরদিকে জোরপূর্বক জমি দখল করে ভবন নির্মান করা হলে ৩০টি পরিবার রাস্তা না থাকায় বাড়িতে যাতায়াতে অবরুদ্ধ হয়ে পরবে। এতে করেও ফারুক চৌকিদার ও হাবিবুর রহমান বেপারীদের শত্রুতা উদ্ধার হবে। কেননা শত্রুকে সমস্যায় রাখাই তাদের সাফল্য বলে মনে করে তারা’

এব্যাপারে কালকিনি থানার এ.এস.আই বাবুল হোসেন বলেন ‘ মামলার প্রেক্ষিতে উভয় পক্ষদের শান্তি-শৃঙ্খলা বজায় রাখতে বলা হয়েছে। এর পরেও যাতে কেউ সংঘর্ষে জড়াতে না পারে সে ব্যাপারে ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।