রাজধানীতে রোগীদের সাথে প্রতারণাকারী ১১ প্রতারক আটক

প্রকাশিত: ১১:০০ অপরাহ্ণ, মে ১৩, ২০২০
0Shares

নিউজ ডেস্ক:   রাজধানীর মোহাম্মদপুর কলেজগেটের মুক্তিযোদ্ধা টাওয়ারে অভিযান চালিয়ে রোগীদের সঙ্গে প্রতারণা ও সরকারি হাসপাতাল থেকে রোগী ভাগিয়ে নিয়ে প্রতারণা করার অভিযোগে প্রাইম অর্থোপেডিক এন্ড জেনারেল হাসপাতালের ১১ জনকে আটক করেছে র‌্যাব।

বুধবার দুপুর থেকে শুরু হওয়া অভিযান সন্ধ্যায় শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত চলছিল। র‌্যাব-২ এর এসপি মুহাম্মদ মহিউদ্দিন ফারুকীর নেতৃত্বে অভিযান পরিচালনা করছেন র‌্যাবের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সারওয়ার আলম।

জানা গেছে, মোহাম্মদ খায়রুল নামের একজনের সড়ক দুর্ঘটনায় ডান পা গুরুতর জখম হওয়ায় উন্নত চিকিৎসার জন্য গ্রামের বাড়ি পিরোজপুর কাউখালী থেকে রাজধানীর পঙ্গু হাসপাতালে আসেন। তবে ভালো চিকিৎসা না হওয়ার কথা বলে থেকে খায়রুলকে কলেজগেটের ওই হাসপাতালে নিয়ে যায় কয়েকজন। কিন্তু হাসপাতালটিতে অপারেশন থিয়েটার থাকলেও তা মানসম্মত নয়। দুই-তিনজন নার্স আছে। খায়রুলের পায়ের অবস্থার অবনতি হলে তাকে অন্য একটি হাসপাতালে নিয়ে অপারেশন করা হয়। এরপর আবারও প্রাইম হাসপাতালে নেয়া হয়। অপারেশনের পর ড্রেসিংটিও ঠিকমত করা হয়নি। উপায়ান্ত না দেখে হাসপাতালে থেকে চলে যাওয়ার কথা বলা হলেও খায়রুলকে বাধা দেন সংশ্লিষ্টরা।

অভিযান পরিচালনাকারী র‌্যাব সদস্যরা বলছেন, খায়রুলের মতো এভাবেই অনেক রোগীকে পঙ্গু হাসপাতাল থেকে ভাগিয়ে উন্নত চিকিৎসার আশ্বাসে প্রতারণা করছিল বেসরকারী ওই হাসপাতালটি। তাদের সহায়তা করত দালাল চক্র।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সারওয়ার আলম বলেন, হাসপাতালের সকল কার্যক্রম খতিয়ে দেখা হচ্ছে। তাদের অপারেশন থিয়েটার থাকলেও মনে হচ্ছে ভুয়া চিকিৎসক দিয়ে রোগীদের অপারেশন করত। অভিযান শেষে বিস্তারিত জানানো সম্ভব হবে।