ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি সম্রাটের মানবিকতার নিদর্শন!

প্রকাশিত: ১১:৫৭ পূর্বাহ্ণ, জুন ২, ২০২০
0Shares

অনলাইন ডেস্ক :বিদ্যুতের তারে জড়িয়ে দুই হাতের কনুই পর্যন্ত হারানো মেধাবী শিক্ষার্থী জান্নাতুল ফেরদৌস এর কলেজে ভর্তির সম্পূর্ণ দায়িত্ব নিলেন বাংলাদেশ ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় নির্বাহী সংসদের সহ-সভাপতি সাইদুর রহমান সম্রাট! সোমবার (১ জুন) বিকালে এই প্রতিবেদক বিষয়টি জানতে পারেন।

এর আগে, গত রবিবার প্রকাশিত এসএসসি পরীক্ষার ফল অনুসারে জান্নাতুল ফেরদৌস আশুলিয়ার ডেন্ডাবর মতিউর রহমান উচ্চবিদ্যালয় থেকে জিপিএ ৪.৭২ পেয়ে পাস করে। তখন জান্নাতুল এর কলেজে ভর্তির আবেদন গনমাধ্যমে প্রচার হলে সোমবার (১ জুন) বিকালে সাইদুর রহমান সম্রাট এই প্রতিবন্ধী মেধাবী শিক্ষার্থীর কলেজে ভর্তির দায়িত্ব নেন।

এব্যাপারে সাইদুর রহমান সম্রাট জানান, দেশের যেকোনো বিপর্যয়ে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ সবার আগে ঝাঁপিয়ে পড়ে, পাশাপাশি যেকোনো মানবিক কাজেও বাংলাদেশ ছাত্রলীগ সবার আগে অগ্রণী ভূমিকা নেয়। এরই ধারাবাহিকতায় আমি যখন জানতে পারলাম আশুলিয়ায় কনুই দিয়ে লিখে এসএসসি পাস করা মেধাবী জান্নাতুল ফেরদৌস টাকার অভাবে কলেজে ভর্তি হতে পারবে না, মানবিক দৃষ্টিকোণ থেকেই আমি এই মেধাবী শিক্ষার্থীর কলেজের ভর্তির দায়িত্ব নিয়েছি। এই মেধাবী শিক্ষার্থীর জন্য কিছু করতে পারছি এটা আমার সার্থকতা।

বিষয়টি নিয়ে ঢাকা জেলা (উত্তর) ছাত্রলীগ নেতা শাহীন চৌধুরী দ্বীপ বলেন, বাংলাদেশে যেখানেই সংকট সেখানেই ছাত্রলীগ নেতাকর্মীরা উজ্জীবিত হয়ে কাজ করছে, তার জ্বলন্ত উদাহরণ বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি সাইদুর রহমান সম্রাট। তাঁর এমন মহান উদ্যাগকে আমি সাধুবাদ জানাই এবং এই মেধাবী শিক্ষার্থীর উজ্জ্বল ভবিষ্যত কামনা করছি।

প্রসঙ্গত, খুব ছোটবেলায় জান্নাতুলের মা-বাবার বিচ্ছেদ হলে মায়ের সঙ্গে খালার বাসায় আশ্রয় মেলে দু’জনের। কিন্তু এর মাত্র দু’বছরের মধ্যে বিদ্যুতের তারে জড়িয়ে দুই হাতের কনুই পর্যন্ত হারাতে হয় তাকে। সাময়িক থমকে যায় জান্নাতুলের মায়ের আশা-আকাঙ্ক্ষা। কিন্তু মায়ের স্বপ্ন পূরণের আকাঙ্ক্ষায় দুই হাত হারিয়েও ঘুরে দাঁড়ায় জান্নাতুল ফেরদৌস নামের ছোট্ট মেয়েটি। সে যে কতটা অদম্য সেটা শত প্রতিকূলতার বিরুদ্ধে কতটা লড়াই করিয়ে দেখিয়ে দিয়েছে এবারের এসএসসি পরীক্ষায়। কনুই দিয়ে লিখেই সে জিপিএ ৪.৭২ পেয়ে পাস করেছে! দৈনিক আমাদের সংবাদের পক্ষ থেকে স্যালুট এই অদম্য মেধাবী জান্নাতুল ফেরদৌসের প্রতি।

সূত্র: Dainik Amader Sangbad