তাড়াশে আদিবাসী বিধবার জমি দখল

প্রকাশিত: ৫:০২ অপরাহ্ণ, জুন ৯, ২০২০
0Shares

তাড়াশ.(সিরাজগঞ্জ)প্রতিনিধি :

সিরাজগঞ্জে তাড়াশে আদিবাসী পল্লীতে এক বিধবার ৫ বিঘা আবাদি জমি দীর্ঘ ৪০ বছর পর প্রভাবশালী কর্তৃক জোর পৃর্বক জমি জবর দখল করার ঘটনা ঘটেছে। জানা যায়, উপজেলার তালম ইউনিয়নের ধাওয়াপুর গ্রামে অমল চন্দ্র সরকার পত্তিক সূত্রে পাওয়া নিজ দখলি জমি দীর্ঘ ৪০ বছর ধরে চাষাবাদ করে আসছে। বিধবা স্ত্রী মিথিলা সরকার ৪ ছেলে মেয়ে নিয়ে ওই জমি চাষাবাদ করে সংসার পরিচালনা করে আসছে। এদিকে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যানের নিকট ওই জমি দাবি করে বিচার দেয় বিমল সরকার।

এ নিয়ে ইউপি চেয়ারম্যান গ্রামে শালিসে শোনা মেলা অন্তে উভয় পক্ষকে জমির প্রয়োজনীয় কাগজ পত্র নিয়ে আগামী একমাস পরে বিচারে দিন ধার্য করে। এদিকে বিচার কাজ শেষে না হতেই একই গ্রামে প্রভাবশালী বিমল সরকার গ্রামের ১৫/২০ জন সন্ত্রাসী বাহিনী নিয়ে রবিবার দিনে দুপুরে উক্ত জমিতে জোড় পৃর্বক ধানের চারা রোপন করে । এ সময় বিধবা ও তার ছেলে বাধা দিতে গেলে তাদেরকে দেশীয় অস্ত্র দিয়ে ভয় দেখায় এবং প্রান নাশের হুমকী দেয়।

৪০ বছরের দখলকৃত জমি বেদখল হওয়ায় বিধবা মিথিলা সরকার এখন পাগল প্রায়। এব্যাপারে তালম ইউনিয়নের ইউপি চেয়ারম্যান আব্বাস-উজ-জামানের সাথে কথা বলা হলে তিনি ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন ,ওই জমি নিয়ে আমার কাছে বিচার দেয় বিমল সরকার। করোনা পরিস্থিতি বিবেচনা করে দুই পক্ষ কে প্রয়োজনীয় কাগজ পত্র নিয়ে আগামী ১ মাস পর পূনরায় শালিস করার জন্য তারিখ নির্ধারন করা হয়।। এর মধ্যে জানতে পারলাম যে, বিমল সরকার থানায় অভিযোগ দায়ের করেছে। এরপর কি হয়েছে সেটি আমার জানা নেই।