বউ নিতে এসে ধরা খেল বর শেষে জরিমানা দিয়ে বউ ছাড়াই ফিরে গেল বাড়িতে

প্রকাশিত: ৯:৪৫ অপরাহ্ণ, জুন ৩০, ২০২০
0Shares

মতিয়ার রহমান ঝিনাইদহ প্রতিনিধি :
বউ নিতে এসে ধরা খেয়ে খেসারত দিতে হলো বর জুয়েল রানাকে। শেষে বউ ছাড়াই উল্টো জরিমানা ও মুচলেকা দিয়েই বাড়ী ফিরতে হয়েছে তাকে। গত ১ মাস আগে গোপনে বাল্য বিয়ে করার অপরাধে সোমবার বিকালে কালীগঞ্জ ইউএনও সূবর্না রানী সাহা বর ও কনে পক্ষকে ২০ হাজার টাকা জরিমানা করেন। ঘটনাটি ঘটেছে কালীগঞ্জ উপজেলার নরেন্দ্রপুর গ্রামে কনের বাড়িতে।

কালীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সূবর্ণা রানী সাহা জানান, সোমবার গোপন সংবাদের মাধ্যমে জানতে পারেন নরেন্দ্রপুর গ্রাামে এক মাস আগে বাল্য বিয়ে পড়ানো কন্যাকে তুলে নিতে এসেছে বর পক্ষ। এমন সংবাদ পেয়েই তিনি দুপুর ২ টার দিকে পুলিশ নিয়ে হঠাৎ হাজির হন ওই গ্রামের আব্দুল আলিমের বাড়িতে। সেখানে দেখতে পান তার নাবালিকা মেয়েকে আনুষ্ঠানিক ভাবে বরের বাড়িতে পাঠানোর প্রস্তুতি চলছে। এ সময় বাল্য বিয়ের অপরাধে মোবাইল কোর্টের মাধ্যমে বর জুয়েলকে ১৫ হাজার টাকা এবং মেয়ের বাবাকে ৫ হাজার টাকা জরিমানা করেন। শেষে মেয়ের বয়স ১৮ বছর পূর্ণ না হওয়া পর্যন্ত তার পিতার বাড়িতে অবস্থান করবে মর্মে মুচলেকা নেওয়া সহ বরকে ফেরত পাঠান।