কক্সবাজারে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ তিন রোহিঙ্গা মাদক ব্যবসায়ী নিহত

প্রকাশিত: ৩:৪৩ অপরাহ্ণ, জুলাই ৯, ২০২০
14 Views

নিজস্ব প্রতিবেদক: বৃহস্পতিবার ভোরে কক্সবাজারের উখিয়া উপজেলায় বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি) একাধিক সদস্যের সাথে কথিত বন্দুকযুদ্ধে তিন সন্দেহভাজন রোহিঙ্গা মাদক ব্যবসায়ী নিহত হয়েছেন।

নিহতরা হলেন- বান্দরবানের কোনাপাড়া রোহিঙ্গা শিবিরের বাসিন্দা নুর আলম (৪৫), বালুখালী রোহিঙ্গা শিবিরের বাসিন্দা হামিদ (২৫) এবং কক্সবাজারের কুতুপালং রোহিঙ্গা শিবিরের নাজির হোসেন (২৫)।

বিজিবির ৩৩-এর কমান্ডিং অফিসার লেফটেন্যান্ট কর্নেল আলী হায়দার আজাদ আহমদ বলেছেন, “খবর পেয়ে অভিনেতাদের ১০ সদস্যের টিলা তুলাতলী সীমান্ত এলাকায় গোদা ব্রিজের কাছে একটি অভিযান চালিয়েছিল। বিজিবি সদস্যরা ১০-২০ জনের একটি দলকে চ্যালেঞ্জ জানায়। ভোর ৪ টা ৪০ মিনিটে তারা যখন বাংলাদেশ ভূখণ্ডের দিকে আসছিল তখন মাদক চোরাচালানকারীরা তাদের উপর গুলি চালায়। বিজিবি সদস্যরা আত্মরক্ষার জন্য পাল্টা গুলি চালিয়ে এই বন্দুকযুদ্ধ শুরু করে। ”

“তিনজন রোহিঙ্গা গুলিবিদ্ধ আঘাত পেয়ে তাদের উখিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে তারা আহত হন। লাশ ময়না তদন্তের জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতালের মর্গে রাখা হয়েছে। ঘটনার সময় অন্য রোহিঙ্গা লোকজন ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে গেছে।”

আলী হায়দার আজাদ আহমেদ আরও বলেছিলেন, “এই ঘটনায় দুই বিজিবির সদস্য আহত হয়েছে। তাদের স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়া হয়েছে।”

ঘটনাস্থল থেকে তিন লাখ পিস কনট্রাব্যান্ড ইয়াবা ট্যাবলেট, দুটি স্থানীয় পাইপগান এবং পাঁচ রাউন্ড গুলি জব্দ করা হয়েছে।

বিজিবির এই কর্মকর্তা আরও বলেছিলেন, “এ ব্যাপারে মামলা দায়েরের প্রক্রিয়া চলছে।”

১ জানুয়ারি থেকে এ পর্যন্ত কক্সবাজারের বিজিবি -৪৪ ব্যাটালিয়ন ১১,৪১,২৯৭  পিস ইন্ট্র্যাবান্ড ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করেছে এবং বিভিন্ন মাদকবিরোধী অভিযানে 89 জনকে আটক করেছে। এ সময় বিজিবির সাথে পৃথক ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নয়জন ইয়াবা ব্যবসায়ী নিহত হন। তাদের বেশিরভাগ ছিলেন রোহিঙ্গা।