সুনামগঞ্জে আবারও বন্যার আশংকা

প্রকাশিত: ৯:৫৩ অপরাহ্ণ, জুলাই ৯, ২০২০
0Shares
আল হাবিব সুুুুুনামগঞ্জ প্রতিনিধি :  
সুনামগঞ্জে আবারও বন্যার পূর্বাভাস দিয়েছে জেলা প্রশাসন ও পানি উন্নয়ন বোর্ড। ঢাকা পানি উন্নয়ন বোর্ডের তথ্য মতে উজান থেকে থেকে নেমে আসা ভারতীয় পাহাড়ী পানির ঢলের কারণে নদীর পানি বাড়তে।
ইতি মধ্যে শহরের পাশ দিয়ে বয়ে যাওয়া সুরমা নদীর পানি আবারও বেড়ে নদীর পাড় ছুয়ে ফেলেছে।
এ ভাবে পানি বৃদ্ধি পেতে থাকলে শহরের নিচুু এলাকা দ্রুত পানির নিচে চলে যাবে।
এতে করে আবারও ভোগান্তিতে পড়বে সাধারণ মানুষ। সুনামগঞ্জ পানি উন্নয়ন বোর্ড জানিয়েছে, ভারতে মেঘালয়ে প্রচুর পরিমাণে বৃষ্টিপাত হচ্ছে।
সুনামগঞ্জেও গত ২৪ ঘন্টা ১শ ৩৫ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে।
বৃহস্পতিবার (৯ জুলাই) সন্ধায় ষোলঘর পয়েন্ট দিয়ে বিপদসীমার ২৩ সেন্টিমিটার নিচ দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। তবে বৃষ্টিপাত বাড়ার পর যদি পানি বাড়ে তাহলে সুরমা নদীর পানি বিপদ সীমার উপর দিয়ে প্রবাহিত হয়ে শহরের নিচু এলাকায় পানি ঢুকে যেতে পারে।

জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে,”সংশ্লিষ্ট সকলের অবগতির জন্য জানানো যাচ্ছে, বন্যা পূর্বাভাস ও সতর্কীকরণ কেন্দ্র, বাপাউবো, ঢাকা এর তথ্যমতে উজানে ভারতের আসাম, মেঘালয় অঞ্চলে সক্রিয় মৌসুমী বায়ুর প্রভাবে ৯ জুলাই, ২০২০ হতে অপার মেঘনা অববাহিকায় প্রধান নদী সূমহের পানি সমতল বৃদ্ধি পেতে পারে।
বৃদ্ধির এই প্রবণতা ৪/৫ দিন স্থায়ী হতে পারে এবং বর্ণিত সময়ে সুরমা-কশিয়ারা সহ মেঘনা অববাহিকার অন্যান্য নদ-নদী পানি (যাদুকাটা, সোমেশ্বরী, ভুগাই-কংস) পানি সমতল কোথাও কোথাও বিপদসীমা অতিক্রম করতে পারে এবং সুনামগঞ্জ জেলার নিচু অঞ্চলে স্বল্পমেয়াদী বন্যা পরিস্থিতির সৃষ্টি হতে পারে।
এ বিষয়ে সংশ্লষ্টি সকলকে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য অনুরোধ জানানো হল।
বিষয়টি জন্য গুরুত্বপূর্ণ ও স্পর্শকারত।”
সুনামগঞ্জ পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী সহিবুর রহমান জানান, নদীতে পানি বৃদ্ধি অব্যাহত রয়েছে। এখনও বিপদ সীমার নিচে রয়েছে পানি। তবে ভারতে বৃষ্টিপাতের পরিমাণ বৃদ্ধি পেলে নদীর দুই কূল উপচে শহরের নিচু অঞ্চলে পানি ঢুকার আশংকা রয়েছে।