মানিকগঞ্জে যমুনার পানি বিপদসীমার ৭৬ সেন্টিমিটার উপরে

প্রকাশিত: ১:৩০ অপরাহ্ণ, জুলাই ২৬, ২০২০
0Shares

মোঃ মতিউর রহমান;সাটুরিয়া(মানিকগঞ্জ) প্রতিনিধি: 

মানিকগঞ্জের শিবালয়ে যমুনা নদীর পানি আরিচা পয়েন্টের বেড়ে বিপদসীমার ৭৬ সেন্টিমিটার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে।
রোববার (২৬ জুলাই) মানিকগঞ্জ পানি বিজ্ঞান শাখার পানির স্তর পরিমাপক মো. ফারুক আহম্মেদ বিষয়টি নিশ্চিত করে জানায়, যমুনা নদীর আরিচা পয়েন্টে পানির বিপদসীমা হচ্ছে ৯ দশমিক ৪০ সেন্টিমিটার। রোববার সকাল ৬টা পর্যন্ত যমুনা নদীতে ১০ দশমিক ১৬ সেন্টিমিটার পানি ছিলো। যা বিপদসীমার ৭৬ সেন্টিমিটার উপরে।
যমুনা নদীতে পানি বৃদ্ধির ফলে জেলার শিবালয়, দৌলতপুর, হরিরামপুর, সাটুরিয়া, মানিকগঞ্জ সদর এবং ঘিওর উপজেলার বিভিন্ন নদ নদী ও খাল বিলে পানি প্রবেশ করছে। এর ফলে এসব এলাকার নিম্নাঞ্চলের বাড়িঘর এবং ফসলি জমিও তলিয়ে গেছে।
পানিবন্দি হয়ে বিপাকে রয়েছে হাজার হাজান মানুষ। বিশুদ্ধ খাবার পানি ও খাদ্য সংকট রয়েছে বন্যা কবলিত এসব এলাকায়। গৃহপালিত পশু নিয়ে বিপাকে রয়েছে তারা। তলিয়ে গেছে বিভিন্ন এলাকার বেশির ভাগ রাস্তাঘাট। আবারও যমুনার পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় ফের ভয়াবহ বন্যার আশঙ্কায় দিন কাটছে বানভাসিদের।

মানিকগঞ্জ কৃষি স¤প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ পরিচালক শাহজাহান আলী বিশ্বাস বলেন, মানিকগঞ্জের প্রায় ২৭ হাজার ৭৪ হেক্টর জমির বিভিন্ন ফসল এখন পানির নিচে। পানি বাড়তে থাকলে আরও বেশ কিছু এলাকার ফসলি জমি তলিয়ে যাবে।
মানিকগঞ্জের জেলা প্রশাসক এসএম ফেরদৌস বলেন, মানিকগঞ্জে ৩০ হাজার ৯৫১টি পরিবারের কয়েক হাজার মানুষ বন্যায় ¶তিগ্রস্ত। ভাঙন ও বন্যায় ¶তিগ্রস্তদের জন্য ১৩০ মেট্রিক টন চাল ও ১৭শ প্যাকেট শুকনা খাবার বিতরণ করা হয়েছে। ত্রাণ বিতরণ কার্যক্রম অব্যাহত রয়েছে।