বাংলাদেশ সরকারকে জিম্মি করে বিদ্যুৎকেন্দ্র করাচ্ছে ভারত-চীন।

প্রকাশিত: ১১:৩০ পূর্বাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২৮, ২০১৯
0Shares

কয়লাভিত্তিক বিদ্যুৎ কেন্দ্র নিয়ে দীর্ঘদিন ধরেই বিতর্ক চলে আসছে। পরিবেশবিদরা এর বিরোধিতা করে আসছেন। তাদের দাবি, এসব প্রকল্প পরিবেশের জন্য ভয়ঙ্কর বিপর্যয় ডেকে আনবে। এমন পরিস্থিতিতে ২০৩০ সালের মধ্যে দেশের সব কয়লাভিত্তিক বিদ্যুৎ প্রকল্প বন্ধের আহ্বান জানিয়েছে টিআইবি। ভারত ও চীন বাংলাদেশ সরকারকে জিম্মি করে এ ধরনের বিদ্যুৎ কেন্দ্র স্থাপনে বাধ্য করছে বলেও মন্তব্য করেছেন প্রতিষ্ঠানটির নির্বাহী পরিচালক ড. ইফতেখারুজ্জামান। তিনি বলেন, চীন ও ভারত কয়লাভিত্তিক বিদ্যুৎ উৎপাদন থেকে সরে গেছে। অথচ বাংলাদেশে এসব প্রকল্প বাস্তবায়নে তারা সরকারকে জিম্মি করছে। চীন, ভারত এবং আন্তর্জাতিক কয়লাভিত্তিক গ্রুপদের চক্রান্ত থেকে বের হয়ে আসার জন্য তিনি সরকার ও বিনিয়োগকারীদের প্রতি আহ্বান জানান।শুক্রবার জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে এক প্রতিবাদ র‌্যালিতে ড. ইফতেখারুজ্জামান এ আহ্বান জানান। তিনি বলেন, আমরা ক্ষতিগ্রস্থ হচ্ছি বৈশ্বিক শত্রুর কারণে। কয়লাভিত্তিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের মাধ্যমে আমরা জলবায়ু পরিবর্তনে নেতিবাচক অবদান রাখছি। এটা আমাদের জন্য অত্যন্ত বিব্রতকর। প্যারিস চুক্তি বাস্তবায়নের উদ্যোগের অংশ হিসেবে ২০৩০ সালের মধ্যে পাঁচ শতাংশ কার্বন নিঃসরণ কমানোর প্রতিশ্রুুতি দিয়েছে বাংলদেশ।টিআইবি মনে করে, রামপাল, মাতারবাড়ি, পায়রা, ট্যাংরাগিরির মতো বড় কয়লাভিত্তিক বিদ্যুৎ উৎপাদন প্রকল্প ওই চুক্তির সঙ্গে সঙ্গতিপূর্ণ নয়।
তথ্যসূত্র. ভয়েস অফ অ্যামেরিকা।