মোংলা বন্দরে আমদানি নিষিদ্ধ পোস্তদানা (আফিন) আমদানিকারকের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের

প্রকাশিত: ১২:১৮ অপরাহ্ণ, আগস্ট ১৭, ২০২০
0Shares

 

শিকদার শরিফুল ইসলাম , বাগেরহাট জেলা প্রতিনিধি:

মোংলা বন্দরে আমদানী নিষিদ্ধ ৪ কন্টেইনার পোস্তদানা (আফিম বীজ) জব্দের ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের হয়েছে। মোংলা কাস্টমস হাউসের সহকারী রাজস্ব কর্মকতার্ মো: এমদাদুল হক বাদী হয়ে রবিবার বিকেলে এ মামলাটি দায়ের করেন। পোস্তদানা আমদানীকারক প্রতিষ্ঠান ঢাকার মেসার্স তাজ ট্রেডার্স ও মেসার্স আয়েশা ট্রেডার্সের নামে এ মামলা করেছে কাস্টমস কর্তৃপক্ষ। এদিকে কাস্টমস কর্তৃপক্ষের দায়ের করা এ মামলায় উত্থাপিত তথ্য উপাত্ত নিয়ে পুলিশ ইতিমধ্যেই তদন্ত শুরু করেছে বলে জানিয়েছে মোংলা থানার অফিসার ইনচার্জ মো: ইকবাল বাহার চৌধুরী।

মোংলা কাস্টমস হাউস ও মোংলা থানা পুলিশ জানায়, গত ৯ আগষ্ট মালয়েশিয়া থেকে মোংলা বন্দরে একটি বিদেশী জাহাজে করে আসা ৪টি কন্টেইনারে ফুটবল, টেনিস বল ও স্নো-স্প্রে আনার ঘোষণা দিয়ে প্রতারণার মাধ্যমে ৬৮ হাজার ২৫৬ কেজি আমদানী নিষিদ্ধ পোস্তদানা আনে ঢাকার সোয়ারী ঘাট এলাকার মেসার্স তাজ ট্রেডার্স ও চক বাজারের আয়েশা ট্রেডার্স নামক দুইটি প্রতিষ্ঠান।

এ পণ্যের চালানটি বন্দরের জেটিতে পৌঁছানোর পর থেকেই আমদানীকারক প্রতিষ্ঠান দু’টির কারো কোন হদিস মিলছিল না। কাস্টমসের পক্ষ থেকে কয়েক দফায় যোগাযোগ করা হলেও আমাদানীকারকদের সাড়া না পেয়ে শেষ পর্যন্ত গত বৃহস্পতিবার কাস্টমস কর্তৃপক্ষ কায়িক পরীক্ষা করে কন্টেইনার বোঝাই পোস্তদানার এ চালানটি জব্দ করে। বিদেশ থেকে বাণিজ্যিক জাহাজে ৪টি কন্টেইনারে আসা এ পোস্তদানার মূল্য ১০ কোটি ৯২ লাখ ৮৮৬ টাকা।